রবিবার, ১৭ই অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১লা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

English

হারানো গৌরবে ফিরছে শতাব্দীর প্রাচীন মাহাবাদ জামে মসজিদ

পোস্ট হয়েছে: আগস্ট ২২, ২০২১ 

news-image

উত্তরপশ্চিমাঞ্চলীয় ইরানি শহর মাহাবাদের অন্যতম সর্বাধিক তাৎপর্যপূর্ণ ইবাদতের স্থান মাহাবাদ জামে মসজিদ। কয়েক শতাব্দীর পুরনো এই মসজিদটিতে পুনরুদ্ধার কার্যক্রম পরিচালনা করছেন সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য বিশেষজ্ঞ ও পুনরুদ্ধারকারীদের একটি দল।

পশ্চিম আজারবাইজান প্রদেশে অবস্থিত মসজিদটি অঞ্চলের একটি শীর্ষ পর্যটন গন্তব্যও। প্রাচীন ও অনন্য স্থাপত্য উপাদানের কারণে বহু পর্যটকের সমাগম ঘটে এখানে। দৃষ্টিনন্দন মসজিদটির ১৮টি পিলার ও ১৮টি গম্বুজ রয়েছে।

পুনরুদ্ধার প্রকল্পটির আওতায় মসজিদের নির্দিষ্ট কিছু অংশে অন্তরক তৈরি, মিনারের উপরিভাগ ও প্রবেশ দরজা মেরামতের কাজ হবে। এছাড়া পিলার দিয়ে চারপাশের প্রাচীরগুলো শক্তিশালী করা হবে। প্রাদেশিক পর্যটন প্রধান জালিল জাবারি বৃহস্পতিবার এসব তথ্য জানান। খবর সিএইচটিএন এর।

তিনি জানান, প্রকল্পটির জন্য ২ দশমিক ৩ বিলিয়ন রিয়াল (৫৪ হাজার ৭শ মার্কিন ডলার) বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে।

সাফাভি যুগের (১৫০১ থেকে ১৭৩৬) মসজিদটি ১৯৬৯ সালে ইরানের জাতীয় ঐতিহ্যের তালিকায় যুক্ত হয়। পশ্চিম আজারবাইজানে বিচিত্র রকমের মনোরম প্রাকৃতিক দৃশ্য, সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যবাহী স্থান ও স্থাপনা এবং জাদুঘর রয়েছে। এর মধ্যে ইউনেসকো স্বীকৃত বিশ্ব ঐতিহ্যবাহী স্থান তাখত-ই সোলেইমান ও কারেহ ক্লিসে (সেন্ট থ্যাডিউস মনাস্টারি), তেপ্পে হাসানলু ও বাস্তাম দুর্গ উল্লেখযোগ্য। সূত্র: তেহরান টাইমস।