মঙ্গলবার, ১২ই নভেম্বর, ২০১৯ ইং, ২৮শে কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

English

সীমান্তরক্ষী হত্যা: নওয়াজকে বার্তা দিলেন রুহানি

পোস্ট হয়েছে: এপ্রিল ৩০, ২০১৭ 

news-image

ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের প্রেসিডেন্ট ড. হাসান রুহানি বলেছেন, বিশ্বের কিছু দেশ প্রক্সি যুদ্ধের মাধ্যমে ইসলামি ঐক্যকে টার্গেট করেছে এবং তারা এ অঞ্চলের দেশগুলোতে উন্নয়ন ও অগ্রগতি বাধাগ্রস্ত করে সন্ত্রাস, সহিংসতা, অনিরাপত্তা, দারিদ্র ও অনগ্রসরতাকে চাপিয়ে দিতে চাচ্ছে।

পাকিস্তান সীমান্তে ইরানের দশ সীমান্তরক্ষীর শাহাদাতের পর পাক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফকে লেখা এক বার্তায় ড. রুহানি এ কথা বলেছেন। পার্সটুডের খবর

তিনি আরও বলেছেন, পাকিস্তানের ভূমি থেকে সন্ত্রাসী গোষ্ঠীগুলো ও দুর্বৃত্তরা ইরানের বিরুদ্ধে কোনো তৎপরতা চালাতে পারবে না বলে ইসলামাবাদ এর আগে প্রতিশ্রুতি দিলেও এ ধরনের ঘটনা ঘটেই চলেছে।

তিনি বলেন, ইতিহাসের বিভিন্ন পর্যায়ে দুই দেশের সীমান্ত নিরাপদ ছিল এবং ইরান পাকিস্তানের উন্নয়ন, অগ্রগতি, স্থিতিশীলতা ও নিরাপত্তাকে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কের ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার দিয়ে এসেছে।

রুহানি আরও বলেন, কখনোই ইরানের ভূমি পাকিস্তানসহ কোনো প্রতিবেশী দেশের বিরুদ্ধে ব্যবহৃত হয়নি, কিন্তু দুঃখজনকভাবে পাকিস্তান সীমান্তে উপযুক্ত পদক্ষেপের অভাবে ইরানের সীমান্তরক্ষীরা এমনকি বেসামরিক মানুষেরাও ক্ষতির শিকার হচ্ছে এবং মৃত্যুর ঘটনা ঘটছে।

ইরানের প্রেসিডেন্ট রুহানি পাকস্তানের প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে আরও বলেছেন, দুই দেশের মধ্যে ভ্রাতৃত্বপূর্ণ সম্পর্ক বজায় রাখার পাশাপাশি এ সম্পর্ককে আরও উন্নত করার লক্ষ্যে ইরানি সীমান্তরক্ষীদের হত্যার সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নিন এবং ন্যায়বিচার নিশ্চিত করুন।

গত বুধবার রাতে ইরানের পাকিস্তান সীমান্তবর্তী সিস্তান-বেলুচিস্তান প্রদেশের মিরজাভা’র জিরো পয়েন্টে সন্ত্রাসীদের হামলায় ১০ জন ইরানি সীমান্তরক্ষী শহীদ হয়েছেন। সীমান্তরক্ষীরা এ সময় সেখানে টহল দিচ্ছিলেন। একটি তাকফিরি সন্ত্রাসী গোষ্ঠী ওই হামলার দায় স্বীকার করেছে।