শনিবার, ১৬ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ইং, ২রা পৌষ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ

English

পরমাণু চুক্তি পরবর্তী ইরান-হাঙ্গেরি বাণিজ্য বেড়েছে দ্বিগুন

পোস্ট হয়েছে: ডিসেম্বর ৫, ২০১৭ 

news-image

ইরান ও ছয় জাতিগোষ্ঠীর মধ্যে সই হওয়া পরমাণু সমঝোতা বা জেসিপিওএ বাস্তবায়ন শুরুর পর থেকে ইরান ও হাঙ্গেরির মধ্যে বাণিজ্য বেড়েছে দ্বিগুণ।  ২০১৫ সালে জেসিপিওএ সই হয় এবং এটি কার্যকর শুরু হয় ২০১৬ সাল থেকে।  এরপর থেকেই ক্রমেই বাড়ছে দুদেশের দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য।

রোববার তেহরানে ইরান চেম্বার অব কমার্স, ইন্ডাস্ট্রিজ, মাইনস অ্যান্ড অ্যাগরিকালচারের চেয়ারম্যান গোলাম রেজা শাফেয়ির সঙ্গে বৈঠকে হাঙ্গেরির কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী মিহালি ভারগা এই তথ্য জানান।

সংবাদ সংস্থা ইরনার খবরে বলা হয়, বৈঠকে ইরান ও হাঙ্গেরির ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদের মধ্যে চারটি সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) সই হয়েছে।  এর মধ্যে হাঙ্গেরির এনেক্সিও কোম্পানি এবং ইরানের বেহিন সামান কোম্পানি ও থারমাল পাওয়ার প্লান্টস হোল্ডিং কোম্পানির মধ্যে হাইব্রিড কুলিং সিস্টেম উৎপাদনে প্রথম চুক্তিটি সই হয়েছে।  পরের চুক্তিটি সই করেছে হাঙ্গেরির ইঞ্জিনিয়ারিং কোম্পানি ‘ইভোপোরো’।  ইরানের গিজিন কোম্পানির সঙ্গে যৌথভাবে বৈদ্যুতিক গাড়ি তৈরিতে এ সমঝোতাটি সই করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

ইভোপোরো ইরানি কোম্পানি পিশরো দিয়েসেলের সঙ্গে বৈদ্যুতিক রেলের সারঞ্জাম উৎপাদনের ক্ষেত্রে আরেকটি চুক্তি সই করেছে।  চতুর্থ চুক্তিটি ১ হাজার বাস তৈরি করতে সই করা হয়েছে। হাঙ্গেরির ইকারুস ও ইরানের শাহার ব্যাংকের ভর্তুকি প্রতিষ্ঠান সিটি ইন্ডাস্ট্রিজ অ্যান্ড মাইনস ডেভেলপমেন্ট গ্রুপের মধ্যে এ চুক্তিটি সই হয়েছে।

হাঙ্গেরির অর্থমন্ত্রী রোববার তার ইরানি প্রতিপক্ষ মাসুদ কারবাসিয়ানের সঙ্গে পৃথক আরেকটি বৈঠক করেছেন।

সূত্র: ফিনানসিয়াল ট্রিবিউন।