রবিবার, ১৬ই জুন, ২০১৯ ইং, ২রা আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

English

খনি খাতের রপ্তানি থেকে ইরানের আয় ৯ বিলিয়ন ডলার

পোস্ট হয়েছে: এপ্রিল ১৮, ২০১৮ 

news-image

গত ফারসি বছরে (১৩৯৬) ইরানের অভ্যন্তরীণ খনি খাতে রপ্তানির পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৯ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। ইরানের উপ শিল্পমন্ত্রী মেহদি কারবাসিয়ান এই তথ্য জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার সাংবাদিকদের তিনি জানান, আগের বছরে স্টিল পণ্য রপ্তানির পরিমাণ ৮ মিলিয়ন টনে দাঁড়াবে বলে ধারণা করা হয়েছিল। কিন্তু সেখানে রপ্তানির পরিমাণ দাঁড়িয়েছে সাড়ে নয় মিলিয়ন টনে। এ সময়ে কানাডা, মেক্সিকো ও পূর্ব এশিয়ার মতো নতুন গন্তব্যে রপ্তানি হয়েছে এসব পণ্য।

তিনি জানান, ফারসি ১৩৯৬ সালে ইরান ৭ লাখ ৪০ হাজার টন স্পঞ্জ লোহা ও ১৮ মিলিয়ন টনের লোহা রপ্তানি করেছে। উল্লিখিত সময়ে ইরানিয়ান মাইনস অ্যান্ড মাইনিং ইন্ডাস্ট্রিজ ডেভেলপমেন্ট অ্যান্ড রেনোভেশন অরগানাইজেশন (আইএমআইডিআরও) ও এর অধিভুক্ত কোম্পানিগুলো ২ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের বিভিন্ন প্রকল্প উদ্বোধন করেছে। কারবাসিয়ান জানান, বর্তমান ইরানি বছরের (১৩৯৭) শেষে ইরানের খনি খাতে প্রায় ৬ বিলিয়ন ডলারের নতুন নতুন প্রকল্প উদ্বোধন করা হবে।

ইরান বিশ্বের শীর্ষ দশ খনি সমৃদ্ধ দেশের মধ্যে অন্যতম। দেশটিতে এ পর্যন্ত ৬৮ ধরনের খনিজ দ্রব্য শনাক্ত করা গেছে। এর মধ্যে বিশ্বের সর্ববৃহত কপার মজুদ, জিঙ্ক, ও লোহা অন্যতম। ২০১৬ সালে ইরানের ওপর থেকে অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়ার পর এই খাতে বিনিয়োগে এগিয়ে এসেছে আন্তর্জাতিক লগ্নি প্রতিষ্ঠানগুলো। সূত্র; তেহরান টাইমস।