মঙ্গলবার, ৯ই মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ২৪শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

English

ইসফাহানের ইমাম মসজিদ, ইসলামি স্থাপত্যের অনন্য নিদর্শন  

পোস্ট হয়েছে: ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০২১ 

news-image

ইরানের ইসফাহান শহরের বিখ্যাত ইমাম মসজিদ ইসলামি স্থাপত্যশৈলীর এক অনন্য নিদর্শন।ইউনেস্কোর বিশ্ব ঐতিহ্যের তালিকাভুক্ত নাকশে জাহান স্কয়ারে অবস্থিত মসজিদটির ফিরোজা রংয়ের মোহনীয় সৌকর্য দেখে দর্শনার্থীরা অভিভূত হয়ে পড়েন। সাফাভি রাজা শাহ আব্বাসের শাসনামলে ১৬১১ সালে এটি নির্মিত হয়। শাহ আব্বাস ১৫৮৮ থেকে ১৬২৯ সাল পর্যন্ত রাজত্ব করেন। তার শাসনামলের শেষ বর্ষে মসজিদটির নির্মাণ পুরোপুরি শেষ হয়। মসজিদটির স্মৃতিস্তম্ভে নিখুঁত ও অবিশ্বাস্য অলঙ্করণ দর্শনার্থীদের মুগ্ধ করে। স্মৃতিস্তম্ভের নিখুঁত অনুপাত ও নীল রংয়ের মোজাইক স্থাপত্যেটির সৌন্দর্যে র আরেক নিদর্শন।  

মসজিদটির মনোরম বিশাল প্রবেশদ্বার স্বাগত জানায় দর্শনার্থীদের। মক্কা নগরী অভিমুখে মসজিদটির অবস্থান। ছোট একটি করিডোর মসজিদটির ভেতরের সঙ্গে বাইরের পথকে যুক্ত করেছে। চারপাশে ঘেরা রয়েছে চারটি স্তম্ভ। চত্বরের মাঝখানে রয়েছে ফোয়ারা। নীলহলুদ মিলিয়ে সাত রংয়ের টাইলসের কারুকাজ দেখে অভিভূত হয়ে পড়েন দর্শনার্থীরা। স্তম্ভের গায়ে বেয়ে ওঠা লতাগুল্মের কারুকাজ আর শোভিত ফুল দেখার মতো। ক্যালিওগ্রাফির শিলালিপি মসজিদের বাড়তি আকর্ষণের আরেক দিক। মসজিদের পাশেই আরেকটি মসজিদ যেটি শেখ লোতফোল্লাহ মসজিদ হিসেবে পরিচিত এবং এটি শাহ আব্বারেস শ্বশুরের স্মৃতি রক্ষায় নির্মিত। শেখ লোতফোল্লাহ লেবানন থেকে এসেছিলেন ইমাম মসজিদের নির্মাণকাজ তদারকির জন্যে। তেহরান টাইমস