বৃহস্পতিবার, ২০শে মার্চ, ২০১৯ ইং, ৭ই চৈত্র, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

English

ইরানের মানুষের প্রত্যাশিত গড় আয়ু বেড়ে ৭৪ বছর

পোস্ট হয়েছে: মার্চ ২৯, ২০১৮ 

news-image

প্রত্যাশিত গড় আয়ু বেড়েছে ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের নাগরিকদের। ইরানের পরিসংখ্যান কেন্দ্রের তথ্য মতে, দেশটির নাগরিকদের প্রত্যাশিত গড় আয়ু বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৭৪ বছর। এর মধ্যে পুরুষদের প্রত্যাশিত গড় আয়ু সাড়ে ৭২ বছর আর মেয়েদের গড় আয়ু সাড়ে ৭৫ বছর। যা বৈশ্বিক গড় আয়ুর চেয়ে আড়াই বছর বেশি।

সর্বশেষ ২০১৬ সালের ‍শুমারি অনুযায়ী, ২০১১ সালের শুমারিতে প্রাপ্ত তথ্যচিত্রের তুলনায় পুরুষ ও নারীর যথাক্রমে প্রত্যাশিত গড় আয়ু বেড়েছে ১ বছর ও দেড় বছর করে। গত মঙ্গলবার ইরানি সংবাদ সংস্থা ইরনা এই প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে।

২০১১ সালের শুমারি অনুযায়ী, দেশব্যাপী পুরুষদের প্রত্যাশিত গড় আয়ু ছিল সাড়ে ৭১ বছর এবং মেয়েদের প্রত্যাশিত আয়ু ছিল ৭৪ বছর। সেখান থেকে ২০১৬ সালে প্রত্যাশিত গড় আয়ু বেড়ে দাঁড়িয়েছে পুরুষদের সাড়ে ৭২ বছর ও মেয়েদের সাড়ে ৭৫ বছর।

ইরানের প্রদেশগুলোর মধ্যে মেয়েদের ক্ষেত্রে প্রত্যাশিত গড় আয়ুতে শীর্ষ চারে রয়েছে আলবোরজ, তেহরান, ইসফাহান ও মাজান্দারান। অর্থাৎ আলবোরজের বাসিন্দাদের প্রত্যাশিত আয়ু ৭৮, তেহরানের ৭৭ দশমিক ৮, ইসফাহানের ৭৭ ও মাজান্দারান প্রদেশের বাসিন্দাদের গড় আয়ু ৭৭ বছর। অন্যদিকে গড় আয়ুতে সবার নিচে রয়েছে সিস্তান-বালুচিস্তান, আইয়াম ও নর্থ খোরাসান। এ তিন প্রদেশের মেয়েদের গড় আয়ু যথাক্রমে ৬৯ দশমিক ২, ৭২ ও ৭২ দশমিক ৬ বছর।

ইরানের মধ্যে আলবোরজ (৭৪.৪), তেহরান (৭৪.৩) ও মাজান্দারান (৭৩.৫) প্রদেশে পুরুষদের গড় আয়ু সবচেয়ে বেশি। অন্যদিকে সিস্তান-বালুচিস্তান (৬৬.৭), দক্ষিণ খোরাসান (৬৯.৮) ও হরমোজগান (৬৯.৯) প্রদেশে পুরুষদের গড় আয়ু দেশের মধ্যে সবচেয়ে কম।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা হু এর সর্বশেষ প্রতিবেদন মতে, ২০১৫ সালে বিশ্বে গড় প্রত্যাশিত আয়ু ছিল ৭১ দশমিক ৪ বছর। নারী ৭৩.৮ ও পুরুষ ৬৯. ১ বছর। এ প্রতিবেদন মতে আফ্রিকান অঞ্চলের মানুষদের গড় আয়ু সবচেয়ে কম তথা ৬০ বছরের মধ্যে আর ইউরোপীয় আঞ্চলের লোকদের গড় আয়ু সবচেয়ে বেশি তথা ৭৬ দশমিক ৮ বছরের মধ্যে। সাধারণত বিশ্বব্যাপী পুরুষদের ‍তুলনায় নারীদের গড় আয়ু বেশি দেখা গেছে, যে ব্যবধানের পরিমাণ সাড়ে চার বছর। ১৯৯০ সাল থেকে ২০১৫ সাল পর্যন্ত একই ব্যবধান বিদ্যামন রয়েছে। সূত্র: তেহরান টাইমস