সোমবার, ১৭ই জুন, ২০১৯ ইং, ৩রা আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

English

ইরানিয়ান ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের শিক্ষাসফর ও পিকনিক

পোস্ট হয়েছে: নভেম্বর ১৬, ২০১৫ 

news-image

অজানাকে জানার বা  অদেখাকে দেখার জন্যে অন্তরের আকুল আগ্রহ নেই এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া বিরল। আর তা যদি হয় স্কুল ছাত্রদের জন্য তাহলে তো কোন কথাই নেই। যেসব ছাত্র অন্তত একবার ভ্রমন বা শিক্ষা সফরের অনাবিল আনন্দের ভাগিদার হয়েছে তাদের কাছে এই সফর যে কত প্রত্যাশিত তা কেবল তাদের ছাড়া আর কেউ ভালো বলতে পারবে না।

DSCF3050এই সফর যেমন, মানুষের সৌন্দর্য ও জ্ঞান পিপাসা বাড়ায় তেমনি মানুষকে বিশাল পৃথিবীর অন্তহীন সৌন্দর্য ও রহস্যের মধ্যে অবগাহন করার সুযোগ করে দেয়। তাই জীবনে বৈচিত্র আনয়নে, অভিজ্ঞতা অর্জন ও সৌন্দর্য পিপাসা নিবৃত্ত করার জন্য শিক্ষা সফরের গুরুত্ব বলে শেষ করা যাবে না।

তাছাড়া, শিক্ষার জন্য জীবন নয়।  জীবনের জন্যে শিক্ষার প্রয়োজন। সুশিক্ষা অর্জনের ফলে নিজের জীবনকে যেমন সুন্দর করা যায়, সেই সুন্দর জীবনকে দিয়ে তেমনি সমাজ ও জগৎটাকেও সুন্দর করা যায়।

DSCF3231তাই তো একটা সুন্দর পৃথিবী গড়ার প্রত্যয় নিয়ে বাংলাদেশের মহান বিজয় দিবসের প্রাক্কালে গত ১৩ নভেম্বর, ২০১৫ শুক্রবার ঢাকাস্থ: ইরানিয়ান ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের শিক্ষার্থী, অভিভাবক, শিক্ষক-শিক্ষিকা, পরিচালকমন্ডলী এক শিক্ষাসফরে সাভার জাতীয় স্মৃতিসৌধ ভ্রমন ও জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে পিকনিকের আয়োজন করে। শিক্ষাসফরে অংশগ্রহন করেন ঢাকাস্থ : ইরান সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের ডেপুটি কাউন্সেলর স্কুলের ভাইস প্রিন্সিপাল ড. জহির উদ্দিন মাহমুদ ও অভিভাবক প্রতিনিধি জনাব তৌফিকুল আজম চৌধুরী।

IMG_8007জাহাঙ্গীর বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি সংলগ্ন ছায়ামঞ্চে প্যান্ডেল টাঙ্গিয়ে পিকনিকের আসর বসে। বিদ্যালয়ের শিশুদের ছড়া ও গান পরিবেশনা এবং বিভিন্ন ইভেন্টে খেলাধুলার প্রতিযোগিতা, পুরস্কার বিতরনী অনুষ্ঠিত হয়। অভিভাবকদের মাঝে আয়োজিত প্রতিযোগিতাটিও ছিল বেশ উপভোগ্য। বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রিয় মসজিদে জুমার নামাযের অংশগ্রহণ, দুপুরের খাবার ও সবশেষে বিশ্ববিদ্যালয়ে গাছগাছালি-লেকসম্বৃদ্ধ পরিবেশে ভ্রমন শেষে পড়ন্ত বিকেলে শিক্ষাসফর ও পিকনিকের সমাপ্তি ঘটে।